,



সংবাদ শিরোনাম:
«» আরেকবার ভোট দিয়ে দেশ সেবার সুযোগ দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা «» অনলাইন নিউজ পোর্টাল ৫৪টি বন্ধ-খুলে দিতে বিক্ষোভ সমাবেশে আল্টিমেটাম «» নিউজ পোর্টাল ৫৮ ওয়েবসাইট খুলে দেওয়া হয়েছে: বিটিআরসি «» মাদারীপুর ১ (শিবচর বিএনপির সবাই দলীয় ভেদাভেদ ভুলে পক্ষে সাজ্জাদ হোসেন সিদ্দিকী লাভলুর «» নির্বাচন কমিশন কার্যালয়ে আপিলে প্রার্থীতা ফিরে পেল মাদারীপুর-১ আসনের জাতীয় পাটির জহিরুল ইসলাম মিন্টু «» জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে“সংবিধান সংরক্ষণ দিবসের আলোচনা সভা আগামীকাল «» অচিরেই সম্প্রচারে আসছে ‘ হ্যাপিনেস টেলিভিশন… «» নির্বাচনে প্রচারণা ও জনসংযোগে ৩০০ আসনেই ছাত্রলীগ থাকবে: ছাত্রলীগ সভাপতি শোভন «» ঢাকা-১৮আসনের জাতীয় পার্টি অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুন ঘিরে নৌকায় ভোট প্রচারে মাঠে «» ফেসবুকে অপপ্রচারে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হবে : ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ

ভোলার চরফ্যাশন মনপুরার নির্বাচনী এলাকায় উন্নয়নের রূপকার আবদুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকব

ভোলা-৪ আসনে এবারও আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন বন ও পরিবেশ উপমন্ত্রী আবদুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকব। দলীয় মনোনয়নের চিঠি পাওয়ার পরপরই তিনি বাসায় ছুটে যান এবং তা তাঁর মা বেগম রহিমা ইসলামের হাতে তুলে দেন। জনপ্রিয় এই সংসদ সদস্য ইতিমধ্যে তাঁর নির্বাচনী এলাকা চরফ্যাশন-মনপুরার উন্নয়নের রূপকার খ্যাতি পেয়েছেন।

বাবা প্রয়াত সংসদ সদস্য অধ্যক্ষ নজরুল ইসলামের পথ ধরে রাজনীতিতে আসেন আবদুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকব। তিনি ২০০৮ থেকে পর পর দুইবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়ে নিজ এলাকায় যে উন্নয়নকাজ করেছেন, তা সারা দেশের স্থানীয় উন্নয়নের জন্যও অনুসরণীয় হয়ে উঠতে পারে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, বাবার আদর্শকে ধারণ করে একসময় স্থানীয় ছাত্রলীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন জ্যাকব। বর্তমানে তিনি চরফ্যাশন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সহযোগিতায় উপমন্ত্রী জ্যাকব চরফ্যাশন-মনপুরাকে বদলে দিয়েছেন অভূতপূর্ব উন্নয়নের মাধ্যমে। একসময়ের অবহেলিত ও অনুন্নত চরফ্যাশন এখন দেশ-বিদেশের মানুষের কাছে দর্শনীয় স্থানে পরিণত হয়েছে।

দলীয় সূত্র জানায়, ২০০৮ সালে আওয়ামী লীগের মনোনয়নে জ্যাকব প্রথম জাতীয় সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। ২০১৪ সালে পুনরায় জাতীয় সংসদ সদস্য নির্বাচিত হলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁকে পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব দেন।

প্রায় ১০ বছর নিরলস পরিশ্রমের মাধ্যমে জ্যাকব বদলে দিয়েছেন চরফ্যাশন-মনপুরার চিত্র। দায়িত্ববোধ, কর্তব্যনিষ্ঠা ও আধুনিকতার ভিশন থাকলেই এমনটা করা সম্ভব বলে মনে করে স্থানীয় লোকজন। তাঁর আইকনিক উন্নয়নের মধ্যে উপমহাদেশের সুউচ্চ ও সর্বাধুনিক ‘জ্যাকব টাওয়ার’ সারা দেশের পর্যটকদের মধ্যে আলোড়ন সৃষ্টি করেছে এবং আন্তর্জাতিকভাবেও বাংলাদেশকে করেছে গর্বিত। চলতি বছরের ২৪ জানুয়ারি রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ এই টাওয়ারের উদ্বোধন করেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, উপমন্ত্রী জ্যাকব চরফ্যাশন-মনপুরাকে নদীভাঙন থেকে রক্ষা করার জন্য প্রায় এক হাজার ৩০০ কোটি টাকার প্রকল্প বাস্তবায়ন করেছেন। দুলারহাট, শশীভূষণ ও দক্ষিণ আইচা নামে নতুন তিনটি থানা ও আটটি নতুন ইউনিয়ন এবং তিনটি নতুন পুলিশ তদন্তকেন্দ্র গঠন করেছেন। প্রায় দুই হাজার কোটি টাকার পাকা রাস্তা ও ব্রিজ-কালভার্ট নির্মাণের মাধ্যমে বিচ্ছিন্ন এই জনপদে যোগাযোগব্যবস্থায় আমূল পরিবর্তন এনেছেন।

চরফ্যাশনই বাংলাদেশের একমাত্র উপজেলা, যেখানে অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত স্থাপন এবং দেশের দ্বিতীয় উপজেলা যেখানে যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ আদালত স্থাপন করেছেন। এ ছাড়া জেলা সদর থেকে সিনিয়র সহকারী জজ আদালত ও সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত চরফ্যাশন ও মনপুরা উপজেলা সদরে স্থানান্তর করেছেন।

আরো অনেক উন্নয়নকাজের মধ্যে জ্যাকব চরফ্যাশন উপজেলা হাসপাতালকে উন্নীত করেছেন ১০০ শয্যায়, আর মনপুরায় করেছেন ৩১ থেকে ৫০ শয্যার হাসপাতাল। চরফ্যাশনের বেতুয়া ও ঘোষেরহাটে দুটি লঞ্চ টার্মিনাল স্থাপনসহ চরফ্যাশন-ঢাকা রুটে পাঁচটি আধুনিক লঞ্চ লাইন চালু করে যাতায়াতব্যবস্থায় যুগান্তকারী উন্নয়নের মাধ্যমে জনগণের দীর্ঘদিনের দাবি পূরণ করেছেন। চরফ্যাশন, মনপুরা ও চরকুকরিমুকরিতে বেড়িবাঁধ নির্মাণ, চরফ্যাশন ও মনপুরায় চারটি চারতলা সাবরেজিস্ট্রি ভবন নির্মাণ, আধুনিক আদালত ভবন নির্মাণ, চরফ্যাশনে পাঁচতলা নতুন উপজেলা পরিষদ ভবন নির্মাণ এবং মনপুরার জন্য তা অনুমোদন করেছেন। মনপুরায় ফায়ার সার্ভিস স্টেশন স্থাপন, আধুনিক অডিটরিয়াম, দুই মেগাওয়াট পাওয়ার স্টেশন স্থাপন ও সৌরবিদ্যুতের আওতাভুক্ত করেছেন।…

 

আবডেট আসছে… mohsin24news@gmail.com
(=মহাসিন বার্তা বিভাগ 01632912582

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

প্রকাশিত সংবাদ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি,পাঠকের মতামত বিভাগে প্রচারিত মতামত একান্তই পাঠকের,তার জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়।
Skip to toolbar